টেস্টে বাংলাদেশের আশার জাহাজ আটকে যায় ডুবোচরে?

পোস্ট করা হয়েছে 23/10/2016-08:12am:    ফয়সাল মাহমুদ ক্রীড়া ডেক্স প্রতিবেদনঃ ক্রিস ওকস পারলে সাকিব আল হাসান পারবেন না কেন? পারলেন! দিনের প্রথম বলের পরিবর্তে আউট হন দ্বিতীয় বলে—ইংলিশ অলরাউন্ডারের আগের দিনের সঙ্গে কালকের বাংলাদেশি ‘সব্যসাচী’র এই যা পার্থক্য! তাতেই চট্টগ্রাম টেস্টে বাংলাদেশের আশার জাহাজ আটকে যায় ডুবোচরে। এখন যা কেবল ডুবে যাওয়ার কষ্টকর অপেক্ষায়! ব্যাট হাতে সাকিব ধনুর্বিদ্যার শৈল্পিক চর্চা করেন না কখনো; বরাবর বরং উইকেটে গিয়েই শুরু করেন গদা চালানো। তাতে সাফল্য বড় কম নেই সত্যি। তাই বলে কালও! ইংল্যান্ডের বিপক্ষে টেস্টে লাল-সবুজের পুরো মানচিত্র যখন তাঁর ব্যাটের দিকে প্রত্যাশাভরে তাকিয়ে, তখনো এমনভাবেই খেলবেন সাকিব! তাও দিনের দ্বিতীয় বলে! আগের দিন তাইজুল ইসলামের প্রথম বলে আউট হন ওকস। কিন্তু ওই ইংরেজের ব্যাটে তো ম্যাচের আগাম ছবি আঁকা ছিল না। সাকিবের মতো দায়িত্বও তাঁর নয়। বাংলাদেশের অলরাউন্ডারের ওসবে অবশ্য থোড়াই কেয়ার। অফ স্পিনার মঈন আলীর বলে উইকেট ছেড়ে বেরিয়ে মারতে চান। বিশাল টার্নে ধোঁকা খেয়ে হয়ে যান স্টাম্পড। ব্যর্থ হওয়ার সফল পথ বেছে নেন তিনি। সমান্তরালে বাংলাদেশের সম্ভাবনার শেষ পরিচ্ছেদও যেন লেখা হয়ে যায়। স্কোরকার্ডের দিকে তাকালে আপাতত তা মনে নাও হতে পারে। ইংল্যান্ড দিন শেষ করেছে দ্বিতীয় ইনিংসে ৮ উইকেটে ২২৮ রান তুলে। সব মিলিয়ে ২৭৩ রানের লিড। হাতে ২ উইকেট থাকায় লিডটাকে না হয় ৩০০-র আশপাশে নিয়ে যাবে। তাতেই কি জয়ের স্বপ্নঘুড়ির ভোকাট্টা হবে বাংলাদেশের? চট্টগ্রামের ধুলো ওঠা ঘূর্ণি উইকেটের চরিত্র বিবেচনায় তা-ই। চতুর্থ ইনিংসে অত রান করা যে হবে অলৌকিক অর্জন! ম্যাচ শেষে তাই আরো বেশি ফিরে ফিরে আসবে তৃতীয় দিন সকালে সাকিবের এই আত্মাহুতি। আগের দিন বিকেলের রং গায়ে মেখে তামিম ইকবাল দেখিয়ে যান জয়ের রঙিন স্বপ্ন। ৭২ রানে পিছিয়ে থাকা বাংলাদেশের স্কোরকে ইংল্যান্ডের চেয়ে ১০০ রানে এগিয়ে নেওয়ার আস্থা রাখেন সতীর্থদের ওপর। সবচেয়ে বেশি করে সাকিবে। কিন্তু সে আস্থার প্রতিদান দিতে পারেন কই দেশসেরা অলরাউন্ডার! আগের দিনের ৩১ রানেও কখনো তাঁকে থিতু মনে হয়নি। ‘এই উইকেটে সেঞ্চুরি করলেও কেউ কখনো থিতু না’—তামিমের কথায় এর ব্যাখ্যা না হয় খুঁজে পাওয়া যায়। কিন্তু কাল দ্বিতীয় বলে ওভাবে উইকেটে ছেড়ে বেরিয়ে মারতে যাওয়া যে একেবারেই ব্যাখ্যাতীত! দলের সেরা ক্রিকেটার এবং বাংলাদেশ ক্রিকেটের পোস্টারবয়ের অমন দায়িত্বহীন ব্যাটিংয়ের পর অন্যদের দায়িত্ব নিতে বয়েই গেছে! ওদিকে বেন স্টোকসও বলে ছড়াচ্ছেন লাল আগুন! দুয়ে মিলে কাল সকালে মাত্র ২৭ রান যোগ করাতেই শেষ ৫ উইকেট হারায় বাংলাদেশ। আগের দিন বিকেলে মুশফিকুর রহিমের আউট ধরলে ২৭ রানে ৬ উইকেটের পতন! আশার দুর্গের পতন হয়ে যায় সেখানেই। ১০০ রানের এগিয়ে থাকার বদলে প্রথম ইনিংসে বাংলাদেশ উল্টো পিছিয়ে ৪৫ রানে। চট্টগ্রামের উইকেট বিবেচনায় যে পিছিয়ে থাকার দূরত্ব ঘোচানো প্রায় সাধ্যাতীত ব্যাপার। তবু বাংলাদেশ বোলিং-ফিল্ডিংয়ে চেষ্টা করে প্রবলভাবে। আর তা ওই সাকিবের নেতৃত্বেই। সত্যিকারের সব্যসাচীর মতো ব্যাটিংয়ের ব্যর্থতা বোলিংয়ে পুষিয়ে দেওয়ার পণ যেন তাঁর। শুরুটা অবশ্য আবির্ভাবেই ৬ উইকেট নেওয়া প্রথম ইনিংসের বালক-বীর মেহেদী হাসানের। অ্যালিস্টার কুককে আউট করে প্রথম ব্রেক থ্রু এই অফ স্পিনারের। নতুন বলে তাঁর সঙ্গী সাকিব উইকেট পান পরের ওভারেই, জো রুটকে এলবিডাব্লিউ করে। পরের ওভারে তাঁর শিকার বেন ডাকেট। ২৮ রানে ৩ উইকেট হারিয়ে ইংল্যান্ড যায় লাঞ্চে। ৫৫ রানে ৮ উইকেট পতনের অবিশ্বাস্য এক সেশনের সাক্ষী হয়ে একটু দম ফেলার ফুসরত মেলে জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামের। লাঞ্চের পরও এক প্রান্ত থেকে ক্লান্তিহীন বোলিং করে যান সাকিব। অন্য প্রান্ত থেকে তাইজুল যোগ দেন শিকারের মিছিলে। আর প্রথম স্পেলের ২০-৫-৪০-৩ বোলিং ফিগারের পথে মঈন আলীকে যখন ফিরিয়ে দেন সাকিব, ৬২ রানে ৫ উইকেট নেই ইংল্যান্ডের। বাঁহাতি অলরাউন্ডারের সকালের ব্যাটিং-পাপের প্রায়শ্চিত্ত হওয়ায় সম্ভাবনারেখা ফুটে ওঠে টেস্টের আকাশে। কিন্তু খেলাটি যে টেস্ট! এখানে রং বদলের খেলা হয় প্রতিনিয়ত। ষষ্ঠ উইকেটে বেন স্টোকস (৮৫) ও জনি বেয়ারস্টো (৪৭) তাই বুক চিতিয়ে দাঁড়িয়ে যান। তাঁদের ১২৭ রানের জুটিতে বাংলাদেশের সম্ভাবনা আবার চুপসে যায় মিয়ানো মুড়ির মতো। শেষ দিকে ইংল্যান্ডের আরো ৩ উইকেট তুলে নেওয়া গেছে। সাকিবের ব্যক্তিগত অর্জনের খাতায় যোগ হয়েছে ইনিংসে ১৫তম পাঁচ শিকারের রেকর্ড। কিন্তু টেস্টে বাংলাদেশের দলীয় অর্জনের খাতাটি শূন্য থাকার আশঙ্কাও তো বাড়ছে সময়ের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে। ক্রমশ! ক্রমাগত!

সর্বশেষ সংবাদ
সোনার বাংলাদেশ গড়ে তোলার প্রত্যয়ে মুজিববর্ষে একাগ্রতা ও নিষ্ঠার সঙ্গে দায়িত্ব পালনেরও আহ্বান:প্রধানমন্ত্রীর বিএনপির গণতন্ত্র হচ্ছে ‘মুখে শেখ ফরিদ আর বগলে ইট:সেতুমন্ত্রী আইসিটির সমন্বয়ক হান্নান খানের মৃত্যুতে প্রধানমন্ত্রীর শোক সবাই মিলে দিব কর, দেশ হবে স্বনির্ভর:রাষ্ট্রপতি রেল সেতুটির নির্মাণ সম্পন্ন হলে আমাদের দেশ এগিয়ে যাবে:প্রধানমন্ত্রী একুশে পদকপ্রাপ্ত ওস্তাদ শাহাদাত হোসেন চলে গেলেন না ফেরার দেশে আজ বহু প্রতীক্ষিত বঙ্গবন্ধুর রেল সেতুর উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী ব্রেকিং নিউজ »আজ থেকে শীতের প্রকোপ বাড়ার আশঙ্কা সরকারের সরলতাকে দুর্বলতা ভাববেন না:সেুতুমন্ত্রী মিরসরাইয়ে যুবলীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত