কমলালেবুর খোসায় ত্বক হবে আকর্ষণীয়

পোস্ট করা হয়েছে 22/02/2021-09:11pm:    স্বর্ণালী প্রিয়া ডেক্স প্রতিবেদনঃ ত্বকের যত্নে কমলালেবুর খোসার কার্যকারিতা রয়েছে অনেক। প্রাকৃতিক এসব উপাদান ব্যবহারে কোনও পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া নেই। নিয়মিত ব্যবহারে উজ্জ্বল ও নমনীয় হয়ে উঠে ত্বক। কমলালেবুতে থাকা বিভিন্ন উপাদান ব্রণ ও ব্রণের দাগ দূর করে। শীতকালেও ব্রণের সমস্যা থাকে অনেকের। এই সময় ব্রণ থেকে মুক্তি পাওয়া খুব কষ্টের হয়ে পড়ে। কমলালেবুর রসের সাইট্রিক অ্যাসিডকে ব্যবহার উপযোগী করে কাজে লাগাতে পারলে উপকার আসে। আঙুলে করে একটু লেবুর রস বা খোসার রস নিয়ে ব্রণের উপর ঘষলে ব্রণ শুকিয়ে যাবে। রোদের তাপে অনেকের ত্বক জ্বলে যায়। চেহারায় সুন্দরভাব থাকার পরও মুখে কালচে ছাপ পড়তে থাকে। এই সমস্যা থাকলে কমলালেবুর রস কিছুটা হাতে নিয়ে মুখে মেখে নিন। কয়েক মিনিট থাকার পর ঠাণ্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। এবার আয়নার সামনে গিয়ে দেখুন, ত্বক ও মন দুটোই চাঙা হয়ে উঠবে আপনার। অনেকে প্রাকৃতিক স্ক্রাবারের কথা ভেবে থাকেন। কিন্তু সেটা কি কখনো সম্ভব হয়। তবে কমলালেবুর খোসা দিয়ে এটা সম্ভব। এক চা চামচ লবণের সঙ্গে এক চা চামচ লেবুর খোসার গুঁড়া ও কয়েক ফোটা গোলাপজল মিশিয়ে ম্যাসাজ করতে থাকুন মুখে। নিয়মিত ব্যবহারে কার্যকরী ফল পাবেন। ত্বকে তৈলাক্তভাবের জন্য ঘর থেকে বের হলেই হাতে টিস্যু বা রুমাল রাখতে হয়। সত্যি, এই সমস্যার থেকে আরও কোনও সমস্যা থাকতে পারে কি কোনও সুন্দরীর কাছে। তবে যাইহোক, এখন থেকে আর এই সমস্যা হবে না। এক চা চামচ লেবুর খোসার গুঁড়োর সঙ্গে এক চা চামচ দুধ মিশিয়ে আধ ঘণ্টার মতো মুখে লাগিয়ে অপেক্ষা করুন। এরপর ঠাণ্ডা পানি দিয়ে মুখ ধুয়ে নিন। নিয়মিত ব্যবহার করতে থাকুন। উপকারিতা নিজেই বুঝতে পারবেন।

সর্বশেষ সংবাদ
সংস্কৃতিকর্মী ও বীর মুক্তিযোদ্ধা নিখিল সেনের মৃত্যুবার্ষিকী আজ আজ রাজধানীর যেসব এলাকায় গ্যাস থাকবে না সংঘরাজ ড. ধর্মসেন মহাথেরোর অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রীর বাণী শিগগিরই বাংলাদেশে আসবেন বাইডেন মুজিব শতবর্ষে মার্চ মাসে নগর আওয়ামীলীগের বৃহত্তর কর্মসূচি- সাবেক মেয়র নাছির ট্রুডোর সঙ্গে বাইডেনের প্রথম ভার্চ্যুয়াল মিটিং পটিয়ায় ড. ধর্মসেন মহাস্থবিরের অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া উপলক্ষে বর্ণাঢ্য র‌্যালি আজ চট্টগ্রাম সিটি মেয়রের সাথে সৌজন্য সাক্ষাত করেন : ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন চসিকের উন্নয়ন কাজে সহায়তা করতে চায় বিপিসি চিরনিদ্রায় শায়িত কলামিস্ট, লেখক সৈয়দ আবুল মকসুদ